খিলাড়ি কুমারের স্ট্রাগল 


বলিউড ইন্ডাস্ট্রি সবথেকে জনপ্রিয় অভিনেতা ও ফিট অভিনেতা যদি কেউ হন, তিনি হলেন অক্ষয় কুমার। আজ এই বয়সেও তিনি কোনো ডামি নিয়ে অভিনয় করেন না। আজও প্রত্যেকদিন ভোরবেলা উঠে শরীর চর্চা করে তবে তিনি শ্যুটিং করতে যান। চলুন আজকে জেনে নেওয়া যাক তার জীবনের কিছু ওঠাপড়ার গল্প। অক্ষয় কুমারের জন্ম হয়েছিল অমৃতসরে। তার আসল নাম ওম ভাটিয়া। তার বাবা একজন আর্মি অফিসার ছিলেন এবং মা ছিলেন হাউস ওয়াইফ।

ছোটবেলা থেকে পড়াশোনার প্রতি সেইভাবে আগ্রহ না থাকলেও খেলাধুলার প্রতি প্রচন্ড পরিমানে আগ্রহ ছিল তার। ডন বসকো স্কুল থেকে পড়াশোনা শিখেছিলেন তিনি। পাশাপাশি ক্যারাটের প্রতি তাঁর ছিল ভীষণ জোক। তিনি ব্ল্যাকবেল্ট অর্জন করেছিলেন নিজের প্রচেষ্টায়।



কিন্তু পড়াশোনায় আগ্রহ না থাকার ফলে মাঝপথে পড়াশোনা ছেড়ে দেন এবং বাবাকে অনুরোধ করেন মার্শাল আর্ট শেখানোর জন্য। প্রথমে পরিচয় না দিলেও পরবর্তীকালে অক্ষয় কুমারের বাবা এই বিষয়ে রাজি হয়ে যান। মার্শাল আর্ট শেখার পাশাপাশি তিনি শুরু করেন মডেলিং। এভাবে আস্তে আস্তে অভিনয় জগতের দিকে আকর্ষণ অনুভব করেন তিনি।

অভিনয় জগতে আসার জন্য তিনি প্রথমে ব্যাকআপ ডান্সার হিসেবে কাজ শুরু করেন। তারপর ১৯৯১ সালে প্রথম অভিনেতা হিসেবে অভিনয় করেছিলেন সৌগন্ধ, সিনেমাতে। এরপর আস্তে আস্তে নিজের অভিনয় দক্ষতা দ্বারা সকলের মন জয় করে নিয়েছিলেন তিনি। তবে খিলাড়ি সিনেমা টি তার প্রথম ব্লকবাস্টার সিনেমা। এই সিনেমার সমস্ত রেকর্ড ভেঙে দিয়েছিল সেই সময়ের।

এই সিনেমাটি অক্ষয় কুমারকে শুধুমাত্র খ্যাতির শিরোনামে পৌঁছে দিয়েছে তা কিন্তু নয়, অক্ষয় কুমারকে বলিউডের খিলাড়ি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করে দিয়েছিল। তারপর আজ পর্যন্ত বহু সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। এমন অনেক চরিত্রে অভিনয় করেছেন, যা অন্য সমস্ত চরিত্রের থেকে একেবারেই আলাদা। তার উল্লেখযোগ্য বেশ কয়টি সিনেমা হল, ও মাই গড, হেরাফেরি, রুস্তম, এয়ারলিফট, টয়লেট, প্যাডম্যান, ইন্টারন্যাশনাল খিলাড়ি, এক রিস্তা, জানোয়ার, আরো অনেক।



দীর্ঘ অভিনয় জীবনে তিনি বহু ফিল্মফেয়ার পুরস্কার পেয়েছিলেন। ২০১৬ সালে জাতীয় পুরস্কার পেয়েছিলেন তিনি। ২০০৮ সালে, উইন্ডসর বিশ্ববিদ্যালয় তাকে আইন বিভাগের একটি ডক্টরেট ডিগ্রী দান করেন এবং ভারত সরকার অক্ষয় কুমারকে ভূষিত করেন পদ্মশ্রী পুরস্কারে।


মাত্র কুড়ি হাজার টাকা দিয়ে শুরু হয়েছিল তার এই যাত্রা। আজ তিনি কোটি কোটি টাকার মালিক। তার ছিল না কোন গডফাদার। অভিনয় জগতে তিনি ছিলেন একেবারেই নতুন। কিন্তু পরিশ্রম এবং একাগ্রতার দ্বারা আজ তিনি সকলের মনে জায়গা করে নিয়েছেন। বলিউডের ধনী অভিনেতার নিরিখে পঞ্চম স্থান অধিকার করেছেন তিনি।

Post a Comment

Previous Post Next Post