লিখিত পরীক্ষা ছাড়াই নিয়োগ করা হবে

‌‌  আবারো রাজ্যের  চাকরি প্রার্থীদের জন্য সুখবর! বিগত দুবছর ধরে যে  বেকারত্বের সংখ্যা বেড়েছে লাফিয়ে লাফিয়ে, সেই সংখ্যাকে কিছুটা কমানোর প্রচেষ্টা করার প্রচেষ্টা মাত্র।

 যে কারণে এবার রাজ্যের তরফ থেকে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। এবার গ্রামীণ লাইব্রেরীগুলোতে লাইব্রেরিয়ান নিয়োগের ক্ষেত্রে অবশ্য অর্থ দপ্তরের থেকেও ছাড়পত্র পাওয়া হয়ে গিয়েছে, যে কারণে নোটিফিকেশনও জারি করা হয়ে গেছে, আসুন আলোচনা করা যাক কিভাবে এই নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে এবং এই সমস্ত লাইব্রেরিয়ানদের বেতন কত? সেই সম্পর্কে‌ও।

 পশ্চিমবঙ্গের ২৩ টি জেলা মিলিয়ে লাইব্রেরিয়ানের শূন্য পদের সংখ্যা হল ৭৩৮, তবে সবথেকে খুশীর খবর কোন লিখিত পরীক্ষা ছাড়াই নিয়োগ হতে চলেছে এই পদগুলিতে। শুধুমাত্র সরাসরি ইন্টারভিউয়ের মাধ্যমে নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে বলে জানা গিয়েছে।

 প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে যা জানা গেছে তা হলো, পদের নাম: লাইব্রেরিয়ান ; মোট শূন্য পদের সংখ্যা ৭৩৮; সিলেকশন কমিটি গঠন যদি  না হয়ে থাকে তাহলে, ১০ই মে, ২০২২। বিস্তারিত বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ ১৭ই মে ২০২২; এমপ্লয়মেন্ট এক্সচেঞ্জ অফিসারের লেটারের তারিখ: ১৭ই মে ২০২২; এমপ্লয়মেন্ট এক্সচেঞ্জের লিস্ট জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ১০ ই জুন ২০২২; অনলাইন আবেদনের শেষ সময় সীমা:১০ই জুন ২০২২; আবেদনপত্র স্কুটিনি ও তালিকা তৈরীর সময়সূচী: ২৪শে জুন ২০২০;  ইন্টারভিউ লেটার পাঠানোর শেষ সময় সীমা: ১লা জুলাই ২০২২; ইন্টারভিউ ১৪ই জুলাই থেকে ১৮ই জুলাইয়ের মধ্যে ফাইনাল লিস্ট ২৫ শে জুলাই ২০২২।

  তবে এখানেই শেষ নয়, ইন্টারভিউয়ের জন্য যে দুটি বিষয় অত্যন্ত জরুরী তা হল বাংলা ভাষা এবং কম্পিউটার সম্পর্কে জ্ঞান। এছাড়াও ইন্টারভিউয়ের দিন চাকরিপ্রার্থীকে তাঁর ডকুমেন্টের অরিজিনাল কপিও সঙ্গে রাখতে হবে। এছাড়াও অন্যান্য আরো কিছু বিশদে জানতে রাজ্য সরকারের ডিপার্টমেন্ট অফ মাস কমিউনিকেশন এক্সটেনশন এন্ড লাইব্রেরীস এক্সপার্টিসের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে গিয়ে অনুসন্ধান করতে হবে।

Post a Comment

Previous Post Next Post